fbpx
21.2 C
Barisāl
Tuesday, December 7, 2021

গৌরনদীতে ছাত্রলীগ ও যুবলীগর মুখমুখি সংঘর্ষ

উপজেলার বার্থী ইউনিয়নের বড়দুলালী গ্রামে সকালে চাঁদা দাবির ঘটনাকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগ ওযুবলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে বোমা হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে ঘটেছে এতে কমপক্ষে দশ জন আহত হয়েছে। গুরুতরভাবে আহত দুই জনকে বরিশাল শের বাংলা মেডিকেলকলেজ হাসপাতাল ও গৌরনদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেভর্তি করা হয়েছে।স্থানীয় লোকজন ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সরকারি গৌরনদীকলেজ ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মো. রাসেল হাওলাদার(২৮) দেশীয় বালু উত্তোলন মেশিন দিয়ে বালুভরাটের ব্যবসা করে আসছিল। সম্প্রতি বার্থী ইউনিয়নেরবড়দুলালী গ্রামের জানে আলমের ডোবা ভরাটের কাজ নেন।গত মঙ্গলবার রাসেল ভরাট কাজ শুরু করেন। ভরাট কাজকেকেন্দ্র করে স্থানীয় যুবলীগ নেতা মামুন প্যাদাসহ কতিপয়যুবলীগ নেতাকর্মির সঙ্গে তাদের ঝগড়াঝাটি হয়। এর জেরধরে গতকাল বুধবার সকালে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতেউভয় পক্ষের ছাত্রলীগ-যুবলীগ ও স্বজনসহ ১০ নেতা কর্মিআহত হয়।আহতরা হলেন, মামুন প্যাদা(৩৫), তার চাচা শ্বশুর সোহাগ বেপারী(৩৬), সমর্থক যুবলীগ কর্মি সোহরাব(৪০) লিটন হাওলাদার(২০),সাইদুল বেপারী(২৮), ছাত্রলীগ নেতা রাসেল হাওলাদার(২৮) তারমা হাসিনা বেগম(৪৫), সমর্থক আরিফহোসেন(২৫)। গুরুতরভাবেআহত সোহাগ বেপরীকে বরিশাল শের ই বাংলা মেডিকেলকলেজ হাসপাতালে ও সোহরাবহোসেন(৪০)কে গৌরনদীউপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।ছাত্রলীগ নেতা রাসেল হাওলাদার অভিযোগ করে বলেন,বার্থী ইউনিযনের বরদুলালী গ্রামে আমি বালু ভরাটের কাজনেই। গত মঙ্গলবার সকালে সরকারি গৌরনদী কলেজছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি ও ইউনিয়ন যুবলীগের সদস্যমামুন প্যাদা তার সহযোগী সোহরাব হোসেনকে নিয়ে ৫০হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন। চাঁদা দিতে অস্বীকৃতি জানালে কাজবন্ধের হুমকি দেন মামুন ও সোহরাব। গতকাল বুধবার সকালে আমিলোকজন নিয়ে ভরাট কাজ শুরু করলে তারা ভরাট কাজে বাধা দেয়এসময় আমি সমর্থকদের নিয়ে বাধা দিলে তারা ফিরে গিয়ে সকাল১১টার দিকে পুনরায় লাঠিসোটাসহ সন্ত্রাসীদের নিয়ে বোমা হামলা চালায় এবং কুপিয়ে ু পিটিয়ে আমার মাসহ সমর্থকদের আহত করেছে। এ ছাড়া পাইপ কেটে বিনষ্ট করে দেয়। অভিযোগ অস্বীকার করে যুবলীগ কর্মিসোহরাব হোসেনবলেন, আমি ও রাসেল যৌথভাবে বালু ভরাটের ব্যবসার কাজ শুরকরি। বরদুলালী গ্রামে একটি ভরাট কাজ শেষ করার পরে তার লভ্যাংশ আমি লাভাংশ আমি দাবি করলে রা লাভাংশ আমি দাবি করলে রাসেল তা দিতে অস্বীকার করেন। এ নিয়ে ঝগড়াঝাটি হলে ছাত্রলীগ নেতা রাসেল তার দলবল নিয়ে আমার উপর হামলা চালায় এবং আমার সমর্থকদের কুপিয়ে জখম করেছে। একইভাবে অভিযোগ অস্বীকার করে মামুন প্যাদা বলেন, চাঁদা দাবির অভিযোগ সম্পূর্ন মিথ্যা। আমার চাচা শ্বশুরকে কুপিয়ে জখম করলে আমি জিজ্ঞাসা করতে গেলে রাসেল নিজেই দলবল নিয়ে বোমা হামলা চালিয়ে উল্টো অঅমাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করেছে। গৌরনদী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনিরুল ইসলাম এ প্রসঙ্গে বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সংঘর্ষের সত্যতা পাওয়া গেেছ। ঘটনাস্থল থেকে অবিস্ফোরিত বোমাসাদৃশ্য বস্তু পাওয়া গিয়াছে।

 

সর্বশেষ সংবাদ

সম্পর্কিত সংবাদ