fbpx
23.7 C
Barisāl
Thursday, October 21, 2021

ইলিশের দাম বাড়ছে লাফিয়ে লাফিয়ে

বরিশাল নিউজ।। আর বাকি মাত্র চারদিন। শেষ হচ্ছে এবারের ইলিশ মৌসুম। মা ইলিশের প্রজনন বৃদ্ধিতে ইলিশ ধরা, ক্রয়-বিক্রয় ও মজুদের ওপর টানা ২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা শুরু হবে ১ অক্টোবর থেকে। এরপর আবার ১ নভেম্বর থেকে টানা আট মাস জাটকা নিধণে নিষেধাজ্ঞা থাকবে। তাই শেষ সময়ে ইলিশ বেচা-কেনায় ধুম পড়েছে । ব্যাপক চাহিদার কারণে দামও বাড়ছে লাফিয়ে লাফিয়ে।

মৌসুমের শেষ পর্যায়ে এসে গত একমাস ধরে জেলেদের জালে এসে ধরা দেয় ইলিশ। মোকাম , ছোট-বড় হাটবাজার ইলিশে সয়লাব হয়ে যায়। সেই সাথে বেড়ে যায় ইলিশ ক্রেতা। তাই দাম কমলেও ,দরপতন হয়নি। পাঁচশ গ্রাম ওজনের ছোট ইলিশের মন বিক্রি হয়েছে ১২ হাজার টাকায়। এলসি অথবা মাঝারি ইলিশের মন ছিল ২৬ হাজার টাকা । আর এক কেজি ওজনের বড় ইলিশের মন ছিল ৩২ হাজার টাকা। এই দামে ক্রেতা-বিক্রেতা সবাই ছিল খুশি । কিন্তু গত একসপ্তাহ ধরে দাম বেড়ে চলেছে লাফিয়ে লাফিয়ে।

মৎস্য আড়তদার মো.জহির সিকদার জানান, মৌসুম শেষ হয়ে যাওয়ার কারণে ক্রেতারা ফ্রিজে ইলিশ রাখার জন্য বেশী বেশী মাছ কিনছেন। এছাড়া পুজার কারণেও চাহিদা বেড়েছে বহুগুন। তাই দামও বেড়ে যাচ্ছে। মঙ্গলবার সকালে ছোট ইলিশ দুই হাজার টাকা বেড়ে ১৪ হাজার,মাঝারি ইলিশ মনপ্রতি দুই হাজার টাকা বেড়ে ২৮ হাজার টাকা এবং বড় ইলিশের দাম ৩২ হাজার টাকা থেকে ৪২ হাজার টাকায় বিক্রি হয়েছে।
মৎস্য আড়তদার সমিতির সভাপতি অজিত দাস মনু জানান, মঙ্গলবার মোকামে কমপক্ষে দুই হাজার মন ইলিশ পাইকারী বিক্রি হয়েছে। তিনি বলেন, এক সপ্তাহ আগেও গড়ে এক হাজার মন ইলিশ আমদানী হতো।
পোর্ট রোডে ইলিশ ক্রেতা হাবিবুর রহমান বললেন,এখনও দাম সহনীয় আছে তাই বেশী করে কিনে রাখছি। পরিমল দাস জানান,আত্মীয় স্বজনকে দেওয়ার জন্য তিনি গত ৩/৪ দিনে দুই মন ইলিশ কিনেছেন। আরো ইলিশ দরকার তার।
দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম ইলিশ মোকাম বরগুনার পাথরঘাটা পাইকারী আড়তদার সমিতির ক্যাশিয়ার জিয়াউল হক মিন্টু জানান, মঙ্গলবার পর্যন্ত ওই মোকামে সাড়ে নয় হাজার মেট্টিক টন ইলিশ ক্রয়-বিক্রয় হয়েছে। ওই মোকামে ছয় থেকে নয়শ’ গ্রাম ওজনের ইলিশের কেজি বিক্রি হয়েছে ছয়শ’ টাকা এবং এক কেজি ওজনের ইলিশের কেজি বিক্রি হয়েছে ৮৫০ টাকায়। একই ধরনের দাম ছিল দক্ষিণের অন্যতম ইলিশ মোকাম পটুয়াখালীর আলিপুর-মহীপুর মোকামে।

পাথরঘাটার ট্রলার শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক দুলাল মাষ্টার জানান, নিষেধাজ্ঞা শুরুর আগে শেষবারের মতো ইলিশ নিধনের জন্য সেখানকার সবগুলো ট্রলার গভীর সাগরে অবস্থান করছে। আগামী ২৮/২৯ সেপ্টেম্বর সাগর থেকে সবগুলো ট্রলার একসাথে ফিরলে দাম কমার সম্ভবনা রয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

সম্পর্কিত সংবাদ